শাহজালালে ফের ইয়াবার মতো নতুন মাদক জব্দ

0
29

চারদিকে নানা সমালোচনার মধ্যেই আবারও রাজধানীর হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে ধরা পড়েছে ইথিওপিয়া থেকে আসা নতুন মাদক এনপিএস (নিউ সাইকোঅ্যাকটিভ সাবসটেন্স) এর একটি চালান। শনিবার দুপুরে বিমানবন্দরের কার্গো ইউনিটের ভেতরে ১৬০ কেজি এনপিএস জব্দ করে কাস্টমস হাউস

এই মাদকটি ইথিওপিয়ান গাঁজা নামে পরিচিত। তবে জাতিসংঘ মাদক ও অপরাধ বিষয়ক সংস্থা মাদকটিকে এনপিএস (নিউ সাইকোঅ্যাকটিভ সাবসটেন্স) হিসেবে চিহ্নিত করছে। ডাকযোগে বাংলাদেশে আসা মাদকের বড় এ চালানটি শাহজালাল বিমানবন্দরের কার্গো হাউজে তিন দিন পর্যবেক্ষণ শেষে শনিবার সকালে খোলা হয়।’

কাস্টমস হাউজের উপ কমিশনার অথেলো চৌধুরী বলেন, ‘গত ৬ সেপ্টেম্বর ভারত থেকে আসা জেট এয়ারওয়ের ফ্লাইটে এই ৯টি কার্টন আসে। কার্টনগুলো সন্দেহজনক মনে হওয়ায় সেগুলো আটক করা হয়। বিগত তিন দিনেও কেউ কার্টনগুলো নিতে আসেনি। পরে শনিবার জাতীয় গোয়েন্দা সংস্থা এনএসআইসহ বিভিন্ন সংস্থার প্রতিনিধিদের সামনে এগুলো খোলা হয়।’

[X]

জানা গেছে, কার্টনগুলো ঢাকার তুরাগ থানার বাদলদী এলাকার ২ নম্বর রোড়ের এশা এন্টারপ্রাইজের ঠিকানায় এসেছে। ইথিওপিয়ার আদ্দিস আবাবার জিয়াদ মুহম্মদ ইউসুফের মাধ্যমে চালানটি এসেছে।

বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ‘বাংলাদেশের বাজারে একেবারে নতুন ধরনের এই মাদক পানির সঙ্গে মিশিয়ে তরল করে সেবন করা হয়। এটা সেবনের পর মানবদেহে ইয়াবার মতো এক ধরনের উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। এটি সেবনের পর ক্লান্তি ও ঘুম আসে না, শারীরিক পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দেয়। পাশাপাশি নিঃসঙ্গতার সৃষ্টি হয়।

প্রসঙ্গত, মাদকবিরোধী অভিযানের মধ্যেই নতুন ধরনের এই মাদকের চালান দেশে আসলো। গত ৩১ আগস্ট একই ধরনের মাদকের ৪৬০ কেজি ওজনের চালান আটক করেছিল আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY